Header Ads

অতীতের খারাপ কাজকে সামনে এনে কাউকে লজ্জা দিবেন না

অতীত খারাপ কাজ,  লজ্জা, রামাদান, মসজিদ, মুসলিম, নামাজ, ইসলাম কি বলে? প্রেম, যিনা, অশ্লীতা, মদ পান, ধূমপান, নেশা

আমাদের চারপাশে হয়তো এমন অনেক মুসলমান আছে যারা খারাপ কাজ করছে, যেমন;- প্রেম করেছে, যিনা করেছে, অশ্লীতা ছড়িয়েছে!
যারা মদ পান করেছে, হয়তো নেশা করেছে, ধূমপান করেছে!

যারা রমাদানের আগে হয়তো সপ্তাহে একদিন ও মসজিদে উপস্থিত হতো না। এমন মুসলিম হয়তো আপনার চারপাশেই অনেক আছে যারা বার বার একই পাপ করেছে।

আপনি যদি তাদের দেখেন এই মাসে, মহিমান্বিত রমাদানে মসজিদে উপস্থিত হচ্ছে। নিয়মিত সালাতে শরীক হচ্ছে- তাহলে দয়া করে তাদের অতীত জীবনের পাপ গুলো খুঁজে বের করবেন না।
অতীতের জীবন তাদের সামনে তুলে ধরে তাদেরকে লজ্জা দেওয়ার, বিব্রত করার কোন অধিকার আমার আপনার নেই।

হতে পারে তারা আল্লাহ সুবহানাহু তায়ালার নিকট যথাযথ ভাবে তাওবাহ করেছে। কিংবা হতেপারে এই রমদানেই আল্লাহ্ তাদের মাফ করে দিবেন।

আল্লাহ্ যদি তাদের ক্ষমা করে দেন তাহলে তাদের অতীত নিয়ে প্রশ্ন তোলার  আমি আপনি কে?

তাদেরকে সাদরে বরণ করে নিন, স্বাগতম জানান।
হতে পারে এই রমাদান থেকেই তাদের মধ্যে প্রকৃত পরিবর্তন আসা শুরু করবে। তাদের বদ অভ্যাস গুলো একে একে পরিবর্তণ আসা শুরু করবে।
আগামী রমাদানে হতে পারে তারা আমার আপনার চাইতে ঈমান-আমলে অগ্রগামী হয়ে যাবে!

আমরা নিশ্চয়ই সাহাবী সাদ ইবনে মু'আয (রা) সম্পর্কে সেই বিখ্যাত হাদিসটি জানি, যিঁনি ত্রিশ বছর বয়সে ইসলাম গ্রহন করেছেন তার ৩৬ বছর বয়সে মৃত্যুবরণ করেছেন। আর তাঁর মৃত্যুতে আল্লাহর আরশ কেঁপে উঠেছিল!
সুবহানআল্লাহ!

কারণ আমরা কেউই জানি না আমাদের শেষ কিভাবে হবে! আমরা কি ঈমানদার হয়ে ঈমান নিয়ে,মুসলিম হয়ে কবরে যেতে পারব?
হিদায়াত কি আমাদের কারো জন্য পার্মানেন্টলি গ্যারান্টটেড?

নিঃসন্দেহে সব ভালো তার, শেষ ভালো যার।