Header Ads

গর্ভাবস্থায় জীবজন্তু বা বিকলাঙ্গ মানুষ দেখলে গর্ভের বাচ্চার উপর কি কোন প্রভাব পড়ে?

গর্ভাবস্থায় - pregnancy qa
গর্ভাবস্থায় জীবজন্তু বা বিকলাঙ্গ মানুষ দেখলে গর্ভের বাচ্চার উপর কি কোন প্রভাব পড়ে?

প্রশ্ন: গর্ভবতী মহিলা যদি জীবজন্তু বা বিকলাঙ্গ মানুষ দেখে তাহলে তা গর্ভের বাচ্চার উপর প্রভাব পড়ে কি? হাদিসের আলোকে এর উত্তর পেলে খুবই উপকৃত হব। উল্লেখ্য যে, আমি ৩.৫ মাসের গর্ভবতী।

উত্তর: মহান আল্লাহ আপনাকে এবং আপনার গর্ভস্থ সন্তানকে সুস্থ রাখুন এবং সব ধরণের বিপদাপদ থেকে হেফাজত করুন। আমীন।
অত:পর 'গর্ভবতী মহিলা জীবজন্তু বা বিকলাঙ্গ মানুষ দেখলে তা গর্ভের বাচ্চার উপর প্রভাব পড়ে'
এ মর্মে কুরআন-সুন্নায় কোনো বক্তব্য আসে নি। সুতরাং এটি কুসংস্কার পূর্ণ বিশ্বাস। এর প্রতি বিশ্বাস রাখা বৈধ নয়।
তবে যথাসম্ভব শরীরের প্রতি যত্ন নিবেন, পুষ্টিকর খাবার গ্রহণ করবেন এবং দীর্ঘ সফর, ভারি ও কষ্টকর কাজ ইত্যাদি থেকে সাবধান থাকবেন। এ সময় স্বামী-স্ত্রীর মিলনেও কোনো সমস্যা নাই তবে সর্তকতার সাথে করা উচিৎ যেন, গর্ভস্থ সন্তানের উপর তার প্রভাব না পড়ে।
আর এ সময় যথাসম্ভব কুরআন তিলাওয়াত, যিকির-আযাকার, তাসবীহ, ইস্তিগফার, কুরআন তিলাওয়াত ইত্যাদি করবেন, গান-বাদ্য এবং সব ধরণের পাপাচার থকেে বাঁচার চেষ্টা করবেন। তাহলে আশা করা যায় আল্লাহ আপনাকে সুসন্তান দান করবেন। আল্লাহ তাওফিক দান করুন। আমীন।

প্রশ্ন: মহিলারা গর্ভ অবস্থায় জীবিত জীব-জানোয়ার, যেমন বাঘ, বানর, সাপ ইত্যাদি দেখতে পারবে কি?
উত্তর: গর্ভ অবস্থায় বাঘ, সিংহ, হাতি, ঘোড়া, বানর, শিম্পাঞ্জী, সাপ, বিচ্ছু হিংস্র-অহিংস্র ইত্যাদি সকল প্রকার জীবন-জন্তু দেখতে পারে চাই সেগুলো জীবিত হোক অথবা মৃত হোক।
তবে জীবিত হিংস প্রাণী দেখতে গেলে সাবধান থাকত হবে যেন তা আক্রমণ করে না বসে। এটা শুধু গর্ভবতীর জন্য নয় বরং সকলের জন্য।
এ সব দেখার সাথে গর্ভ ধারণের কোন সম্পর্ক নাই। এগুলো দেখলে গর্ভস্থ সন্তান বা গর্ভবতী মায়ের ক্ষয়-ক্ষতি হবে এ ধরণের বিশ্বাস রাখা সম্পূর্ণ কুসংস্কার। ইসলামে কুসংস্কারের স্থান নাই।
উত্তর প্রদানে: শাইখ আব্দুল্লাহিল হাদী বিন আব্দুল জলীল